June 23, 2024, 2:12 pm
ব্রেকিং নিউজ

কৃষক হত্যায় বাবা-ছেলে-মাসহ ১০ জনের যাবজ্জীবন

রিপোর্টারের নাম:
  • আপডেট টাইম Monday, June 3, 2024
  • 31 দেখা হয়েছে

জয়পুরহাট প্রতিনিধি
জয়পুরহাটের ক্ষেতলালের জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে কৃষক সামছুল ইসলাম হত্যা মামলায় বাবা-ছেলে ও মাসহ ১০ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে তাদের প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরও দুই বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।সোমবার দুপুরে জয়পুরহাটের অতিরিক্ত দায়রা জজ ১ম আদালতের বিচারক অতিরিক্ত জেলা জজ মো. নূরুল ইসলাম এ রায় দেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- জয়পুরহাটের ক্ষেতলাল উপজেলার মহব্বতপুর গ্রামের মৃত হাফেজের ছেলে ছাবদুল, ছাবদুলের চার ছেলে হেলাল ওরফে হেলু, আলম, ইদ্রিস ও রেজাউল, ছাবদুলের স্ত্রী ফাতেমা, আলমের স্ত্রী ফারজানা, হেলালের স্ত্রী লিলিফা, আমেজ উদ্দীনের ছেলে হেলাল উদ্দীন ও রুকিন্দীপুরের জিয়াউল হকের স্ত্রী ফুত্তি বেগম।

এছাড়া অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় এ মামলা থেকে দুজনকে খালাস দেওয়া হয়েছে।

জয়পুরহাট জজকোর্টের সরকারি সহকারী কৌঁসুলি (এপিপি) গোকুল চন্দ্র মণ্ডল এ রায় প্রদানের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

মামলার বিবরণে জানা গেছে, জেলার ক্ষেতলাল উপজেলার মহব্বতপুর গ্রামের ছাবদুলের কাছ থেকে প্রায় ৪০ শতক জমি কবলা করে প্রায় ২১ বছর ধরে ভোগ দখল করে আসছিলেন একই গ্রামের কৃষক সামছুল ইসলাম। পরে সেই জমি নিয়ে আসামিরা তার সঙ্গে বিরোধে জড়িয়ে পড়েন। তারই জের ধরে গত ২০১১ সালের ৩১ অক্টোবর দুপুরে কৃষক সামছুল ও তার বাবা জিয়াপুর মৌজার ওই জমিতে আলুর বীজ বপন করছিলেন। সেই সময় আসামিরা পরিকল্পিতভাবে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সেখানে উপস্থিত হয়ে তাদের মারপিট করে আহত করেন।

গ্রামবাসী গিয়ে তাদের উদ্ধার করেন এবং গুরুতর আহত সামছুলকে প্রথমে জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতাল ও অবস্থার অবনতি হওয়ায় পরে সেখান থেকে বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করেন। পরে কিছুটা সুস্থ হলে তাকে জয়পুরহাটের ক্ষেতলালে নিজ বাড়িতে আনা হয়। বাড়িতে অবস্থানকালে ২০১২ সালের ২০ জানুয়ারি তার মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী মেরিনা বেগম বাদী হয়ে ক্ষেতলাল থানায় মামলা করেন।

শেয়ার করুন
এই ধরনের আরও খবর...
themesba-lates1749691102